করোনায় মশদগাও এর আলহাজ্ব নুরুল হক মুন্সীর মৃত্যু, করোনা-করুন দাফন কাফন !

0
38
করোনায় মশদগাও এর আলহাজ্ব নুরুল হক মুন্সীর মৃত্যু, করোনা-করুন দাফন কাফন !

প্রকাশিত : শুক্রবার, ১২ জুন ২০২০ ইং ।। ২৯ই জ্যৈস্ঠ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ ।।

বিক্রমপুর খবর : অফিস ডেস্ক : আজ ১২জুন লৌহজং উপজেলার মশদগাও গ্রাম নিবাসি আলহাজ্ব নুরুল হক মুন্সী ৭৩ পিতা মৃত মোঃ বোরহান উদ্দিন মুন্সি সকাল ৯টায় করোনা আক্রান্ত হয়ে ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না-লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহে রাজেউন)। করোনা সন্দেহে নুরুল হক মুন্সী নিজেই স্ত্রীকে সাথে নিয়ে লৌহজং উপজেলা স্বাস্হ্য কমপ্লেক্সে গিয়ে করোনাভাইরাস টেস্ট করতে  ছোয়াব স্যাম্পল দিয়েছিলেন গত ৩ জুন ২০২০ইং বুধবার। গতকাল তার স্ত্রী এরও করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসে এবং তাহারা  দু’জনেই এক ঘরে বসবাস করতেন। মৃত্যুকালে তিনি ১ ছেলে ২ মেয়ে ও অনেক গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তাহার দুই মেয়ের মধ্যে এক মেয়ে ছোট বেলায় আঘাত পেয়ে পঙ্গু হয়ে বিছানায় শয্যাশায়ী হয়ে আছেন বছরের পর বছর, আরেক মেয়ের বিয়ে হয়েছিল সে নারায়ণগঞ্জ থাকতেন।  মাত্র দুদিন আগে পাশের বাড়িতে তাহার বোন গোলাম কবির (সুরুজ) এর মা মারা যান।

মরহুম নুরুল হক মুন্সী ছিলেন মশদগাও মুন্সী বাড়ি মরহুম মাওলানা বোরহান উদ্দিন সাহেবের ছোট ছেলে আলহাজ্ব নূরুল হক মুন্সী। বিক্রমপুরের একসময়ের প্রখ্যাত আলিম ছিলেন যাকে একনামে সকলেই চিনতেন তিনি আলহাজ্ব নূরুল হক মুন্সীর পিতা মৌলভি বোরহান উদ্দিন।

লৌহজং উপজেলার মশদগাঁও এ, এল, কে আলিম দাখিল মাদ্রাসাটি  শ্রীনগর থানার শাইন পুকুর নিবাসী তৎকালীন লৌহজং থানার  সাব রেজিষ্ট্রার মোঃ মজিবুল হক সাহেব প্রতিষ্ঠা করেন। এলাকায় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ধর্মানুরাগী ধনাঠ্য ব্যক্তিবর্গের সাথে আলোচনা করে দ্বীন শিক্ষা প্রসারে বুনিয়াদ গড়ে তোলার উদ্দেশ্য (১৯৪০-১৯৪৫) প্রতিষ্ঠা করেন। উদ্যোক্তাদের মধ্যে অন্যতম ছিলেন মরহুম মৌলভি বোরহান উদ্দিন। মাদ্রাসাটি আনুষ্ঠানিক ভাবে ১ জানুয়ারি ১৯৪৫ইং সালে শিক্ষা কার্যক্রম শুরু করে। সাব রেজিষ্ট্রার মোঃ মজিবুল হক সাহেব এই মশদগাঁও এ, এল, কে দাখিল মাদ্রাসাকে (আব্দুল লতিফ খাঁন) জুনিয়ার মাদ্রাসা ও মশদগাঁও কবরস্থান প্রতিষ্ঠা করেন। মাদ্রাসাটি পরিচালনা করার জন্য আশেপাশে অনেক জমি ক্রয় করে দিয়ে যান। মাদ্রাসাটি সরকারী মঞ্জুরী লাভ করে ১জানুয়ারি ১৯৮৬ সালে ও  আলিম খোলার অনুমতি লাভ করে ২০১২ইং সালে।

মশদগাঁও এ, এল, কে আলিম দাখিল মাদ্রাসা (মাদ্রাসা কমপ্লেক্স, মসজিদ, হেফজখানা ও লিল্লাহ বোডিং) এর ১৪ বছর পরিচালনা পরিষদের সেক্রেটারী ছিলেন মরহুম আলহাজ নুরুল হক মুন্সী। মরহুম আলহাজ নুরুল হক মুন্সী অনেকদিন জাপান প্রবাসী ছিলেন, বর্তমানে তিনি অবসর জীবন যাপন করতেন বাড়িতে।

১৪ বছর পরিচালনা পরিষদের সেক্রেটারীর দায়িত্বে থাকা মশদগাঁও এ, এল, কে আলিম দাখিল মাদ্রাসা , কবরস্থান এর আলহাজ নুরুল হক মুন্সীর গোছল,দাফন কাফন হল লৌহজং উপজেলা যুবলীগ নেতাদের সাহায্যে করোনা-করুন এই দাফন কাফন নিয়ে বিক্রমপুর খবরের পাঠকদের উদ্দেশ্যে কনকসার ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদের ফেসবুক পোষ্টটি হুবহু তুলে ধরা হলো-

একজন করোনা আক্রান্ত রোগীর মৃত্যু একজন মানবতার ফেরিওয়ালা যুবলীগ নেতা মূর্তুজা

 

আজ সকালে আমাদের বাড়িতে মশদগাও মুন্সী বাড়ি মরহুম বোরহানউদ্দিন মাওলানা সাহেবের ছোট ছেলে আলহাজ্ব নূরুল হক মুন্সী সকাল নয় টায় ইন্তেকাল করেন (ইন্না-লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহে রাজেউন) গত চার দিন আগে তার করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসে এবং গতকাল তার স্ত্রী করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসে।তারা দু জনেই এক ঘরে বসবাস করেন।আমি ওষুধ ও আত্মীয় স্বজন খাবার ব‍্যবস্থা করে লকডাউন অবস্থায় আছেন।নিয়মিত খোঁজ খবর রাখছি ।
আজ সকালে তার মৃত্যুর পর প্রশাসন কে জানাই।কিন্তু লাশ গোসলের কোনো লোক পাই না । অসহায় হয়ে পরি।পরে লৌহজং উপজেলা যুবলীগ নেতা মূ্র্তুজা কে টেলিফোনে সহযোগিতা চাই। তিনি দ্রুত তার টিমের সদস্যদের দিয়ে গোসল,যানাযর নামায ও মাটি দেবার কাজ করেন ।এর মধ্যে আরেক যুবলীগ নেতা মোস্তাক এসে ও যোগ দেন ।
ধন্যবাদ যুবলীগ নেতাদের
স‍্যালুট
যুবলীগ নেতা মুর্তজার নেতৃত্বে যাঁরা এই দাফন সম্পন্ন করেছেন।আপনাদের সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি ।

নিউজটি শেয়ার করুন .. ..

একটি উত্তর দিন

দয়া করে আপনার কমেন্টস লিখুন
দয়া করে আপনার নাম লিখুন