আলহাজ্ব আব্দুর জলিল বিক্রমপুরীর ইন্তেকাল

0
46
আলহাজ্ব আব্দুর জলিল বিক্রমপুরীর ইন্তেকাল

প্রকাশিত:শুক্রবার,১৮ অক্টোবর ২০১৯ ইং ।। ৩রা কার্তিক ১৪২৬ বঙ্গাব্দ।

বিক্রমপুর খবর ডেস্ক : গত রাত ১২টা ৩০মিনিটে। লৌহজং এর কলমা গ্রামের আলহাজ্ব আব্দুর জলিল বিক্রমপুরী সাহেব ইউনাইটেড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেছেন(ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।  মৃত্যুকালে তাহার বয়স হয়েছিল ৯৭ বছর।

তাহার ১ম নামাজে জানাজা আজ শুক্রবার সকাল ১০ ঘটিকায়,লৌহজং এর ধাইদা মাদ্রাসা মাঠে,(কলমা ইউনিয়ন) অনুষ্ঠিত হইবে এবং আগামীকাল ১৯ অক্টোবর শনিবার সকাল ১০টায় ইসলামপুর-এ  আব্দুর জলিল বিক্রমপুরীর ২য় নামাজে জানাজা শেষে আজিমপুর কবরস্হানে দাফন করা হইবে।

তাহার ৭ ছেলে ৩ মেয়ে,প্রবাসে আছে ৩ ছেলে। মৃত্যুকালে তাহার ছেলে,মেয়ে,নাতি-নাতনিসহ বিক্রমপুরের অগণিত শুভাকাঙ্ক্ষী রেখে ছেড়ে চলে গেলেন।

বিক্রমপুরের সকল মানুষের সাথে ছিল তাহার সুসম্পর্ক রাজনৈতিক মতভেদ এর বাহিরে ছিল জলিল বিক্রমপুরীর গ্রহণযোগ্যতা তিনি বিক্রমপুরের যে কোন কাজে সকলকে সাথে নিয়ে আগাইয়া আসতেন। বিক্রমপুরের বিভিন্ন সংগঠনের সাথে জড়িত ছিলেন। সমাজের উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছেন অনেক আগ থেকেই। মসজিদ,মাদরাসা,স্কুল-কলেজের উন্নয়নে রয়েছে তার অবদান। এলাকার জন্য কোনো কিছু দরকার। কিন্তু টাকা নেই। কার কাছে যাওয়া যায়? কাকে ধরা যায় ? এ বিষয়ে উনি ছিলেন পারদর্শী কোরবান আলী, এয়ার ভাইস মার্শাল আমিনুল ইসলাম থেকে শুরু করে বর্তমানের রাজনৈতিক সকল নেতা-নেত্রী, বিক্রমপুরের সকল পেশার মানুষের সাথে তাহার খুবুই ভাল সম্পর্ক ছিল। “চারণ সমাজ সেবক” এই উপাধিটা সম্ভবত এয়ার ভাইস মার্শাল আমিনুল ইসলাম দিয়েছিলেন বিক্রমপুর ফাউন্ডেশনে তাহার সামাজিক কর্মকাণ্ডের অবদানের জন্য। অনেক সংগঠনের ন্যায় বিক্রমপুর ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠা থেকে শুরু করে এ পর্যন্ত জড়িত ছিলেন। তাহার মৃত্যুতে বিক্রমপুর একজন ভাল সংগঠক হারাল।

একটি উত্তর দিন

দয়া করে আপনার কমেন্টস লিখুন
দয়া করে আপনার নাম লিখুন